যশোরের ঝিকরগাছায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ২ ও পানিতে ডুবে ১ শিশু নিহত হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার :

যশোর-বেনাপোল মহাসড়কের ঝিকরগাছা বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন হানিফ সুপার মার্কেটের সামনে মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় হাসানুর রেজা হাসান (৩৭) নামের একজন নিহত হয়েছেন। নিহত হাসান পৌরসদরের পুরন্দরপুর ৭নং ওয়ার্ডের মৃত সায়েদ আলী বিশ্বাসের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শনিবার সকাল আনুমানিক সাড়ে ৬টার দিকে বাড়ি থেকে একটি ভ্যানে কিছু পরিমাণ তরকারী নিয়ে বাজারে আসার পরে ভ্যানে থাকা অন্য এক যাত্রীকে হানিফ সুপার মার্কেটের সামনে নামিয়ে দিয়ে পূর্বের ন্যায় কাঁচাবাজারের যাওয়ার জন্য ভ্যান চালক অসাবধানতার মাধ্যমে তার ভ্যান ঘুরিয়ে নিতে যাওয়ার সময় বেনাপোল গামী একটি ট্রাক (ঢাকা মেট্রো ব ১৬-৫৬৮৯) এসে ধাক্কা দেয়। ঘটনাস্থলে হাসানের মৃত্যু হয়। ঘটনাস্থল থেকে ট্রাকের ড্রাইভার ও হেলপার পলাতক রয়েছে। ঘাতক ট্রাকটি নাভারণ হাইওয়ে পুলিশ ফাঁড়িতে রয়েছে।

সকাল ৮টার দিকে বল নিয়ে খেলা করার সময় বাড়ির পাশে থাকা গর্তের পানিতে ডুবে আরস নামের ১৮মাসের একটি শিশুর মৃত্যু হয়েছে। সে পুরন্দরপুর সাদ্দামপাড়া গ্রামের জাহাঙ্গীর হোসেনের ছেলে। এই বিষয়ে থানার অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

অপমৃত্যু মামলা সূত্রে জানা যায়, আরস’র মা শাহানারা খাতুন সকাল বেলা ছেলেকে বাড়ীর উঠানে বল দিয়ে খেলা করতে রেখে রান্নার কাজে ব্যস্ত ছিলেন। এমতাবস্থায় ছেলে খেলারছলে বাড়ির পাশে থাকা গর্তে পড়ে যায়। হঠাৎকরে ছেলেকে দেখতে না পেয়ে বাড়ির আসে আশে খোঁজাখুজি করার পরে, না পেয়ে বাড়ির পাশে থাকা গর্তের দিকে তাকিয়ে দেখেন যে ছেলে উপুড় হয়ে পড়ে আছে। পরবর্তিতে ছেলেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা মৃত ঘোষণা করেন।

অপরদিকে বেলা ১২টার দিকে গদখালী-পানিসারা সড়কে নিমতলা নামকস্থানে বালির ট্রাক ও মটরসাইকেল সংঘর্ষে মোটরসাইকেল চালক শিহাব হোসেন (১৪) নামের আর এক শিশু নিহত হয়েছে। সে কুমরী গ্রামের সাবেক মেম্বর বজলু শেখের ছেলে ও বাগআঁচড়া ইউনাইটেড মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৯বম শ্রেণীর ছাত্র।

ঘটনা সূত্রে জানা যায়, শিহাব মোটরসাইকেল (এ্যাপাসি আরটিআর যশোর ল ১৩-৯৬২০) যোগে পানিসারা হতে গদখালী যাচ্ছিল এবং বিপরীত দিক থেকে বালি ভর্তি একটি ট্রাক (যশোর ট ১১-৫৪৭০) গদখালী হতে পানিসারা দিকে যেতে হাড়িয়া নিমতলা মাঠের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলে শিহাব মারা যায়। ট্রাকটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার ধারে মাঠে চলে যায়। ট্রাকের ড্রাইভার ও হেলপার পলাতক আছে। ঘটনাস্থলে থানা পুলিশ ও ফায়ারসার্ভিসের সদস্যরা লোকজন উপস্থিত হয়ে লাশ উদ্ধার করেন। কিন্তু ট্রাকের ড্রাইভার ও হেলপার পালাতক রয়েছে।

ঝিকরগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ সুমন ভক্ত বলেন, সকালের সড়ক দূর্ঘটনার বিষয়ে নাভারণ হাইওয়ে ফাঁড়ির দেখভাল করছেন। অপারদিকে সকালের ১৮মাসের একটি শিশু খেলতে গিয়ে পানিতে ঢুবে মারা গিয়েছে। ঘটনার বিষয়ে থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। দুপুরে সড়ক দূর্ঘটনার বিষয়ে আমরা দেখভাল করছি। ঘটনাস্থলে বালি ভর্তি ট্রাক উল্টো হয়ে পড়ে আছে। আমরা ট্রাকটি তুলে থানায় নেওয়ার প্রক্রিয়ায় রয়েছি। ঘটনার বিষয়ে এখনো কোনো মমলা হয়নি।

Please follow and like us:
Tweet 20

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial
error

Enjoy this blog? Please spread the word :)