ভালোবাসা দিবস উদযাপনে ভিন্নতা আনবেন যেভাবে

লাইফস্টাইল

বছর ঘুরে আবারও এলো ভালোবাসা দিবস। ভালোবাসার রঙে নিজেদের সম্পর্কটি আরেকটু রঙিন করার দিন এটি। এই দিনটি নিয়ে বেশিরভাগ প্রেমিক/প্রেমিকার নানা পরিকল্পনা থাকে। থাকে একজন অপরজনকে উপহার দিয়ে চমকে দেয়ার চেষ্টা। তবে দুঃখের বিষয় হলো সব বছরের উপহারগুলোই গতানুগতিক হয়ে যায়। তাই ভালোবাসার উদযাপনে আনতে পারেন নতুনত্ব-

Valobasa

নিজের হাতেই কার্ড বানিয়ে দিন: মেসেজে কিংবা ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে নয়, এবারের ভালোবাসা দিবস স্মরণীয় করে রাখতে নিজের হাতেই তৈরি করে ফেলুন একটি কার্ড। তাতে নিজের সৃজনশীলতা তো প্রকাশ পাবেই, পাশাপাশি নিজের মনেও কথাটিও সুন্দর করে গুছিয়ে লিখতে পারবেন। উপহারের ভেতরে থাকুক আন্তরিকতার স্পর্শও।

Valobasa

রান্না করে চমকে দিন: রেস্টুরেন্টে তো সারা বছরই খাওয়া হয়। সেখানকার খাবার যত সুস্বাদুই হোক না কেন, আন্তরিকতার ছোঁয়া সেভাবে পাওয়া যায় না যেভাবে ঘরে তৈরি খাবারে থাকে। তাই রেসিপি শিখে নিয়ে নিজেই তৈরি করে ফেলুন প্রিয় মানুষটির পছন্দের খাবার। তাতে রেস্টুরেন্টে ভিড়-ভাট্টায় যেতে হবে না, বরং যে সময়টুকু বেঁচে যাবে, তা নিজেদের মতো করে কাটাতে পারবেন। রান্না করতে যদি পছন্দ নাও করেন, তবু কিছু একটা তৈরি করে ফেলুন। আপনার হাতের তৈরি যেকোনো খাবারই তার কাছে অমৃতসম মনে হবে।

Valobasa

এড়িয়ে চলুন ভিড়: ভালোবাসা দিবসে সব জায়গাতেই ভিড় বেড়ে যায়। শহরজুড়ে তো আর কাপলের অভাব নেই! সেই ভিড়ে আপনারাও মিশে গেলে খেই হারিয়ে ফেলতে পারেন। তাই এড়িয়ে চলুন সিনেমা হল, নামী রেস্টুরেন্ট, শহরের পরিচিত বেড়ানোর জায়গাগুলো। বরং শহর থেকে একটু দূরে বেড়াতে চলে যেতে পারেন। নদীর পাড় ধরে হেঁটে বেড়ানো কিংবা গ্রামীণ পথ ধরে ছুটে চলতে অন্য রকম আনন্দ হবে।

Valobasa

বুদ্ধি খাটিয়ে উপহার দিন: ঘড়ি, পারফিউম, কফি কাপ তো অনেক দেয়া হলো, এবছর একটু চিন্তা-ভাবনা করে উপহারটি দিন। টবে লাগানো ছোট্ট একটি গাছ উপহার দিতে পারেন। কিংবা তার প্রিয় গানগুলোর একটি সিডি তৈরি করে দিন। আপনাদের পছন্দের ছবিগুলো দিয়ে একটি অ্যালবাম বা একটি মিউজিক ভিডিও তৈরি করতে পারেন। এমনকিছু দিন, যা তার কাছে স্মরণীয় হয়ে থাকে।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *