সাতক্ষীরা জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডারের সংবাদ সম্মেলন

সাতক্ষীরা

আসাদুজ্জামান:

ভূমিদস্যু ভাইয়ের কবল থেকে পৈত্রিক সম্পত্তি রক্ষা ও জীবনের নিরাপত্তার চেয়ে সংবাদ সম্মেলন করেছেন সাতক্ষীরা জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মোশাফররফ হোসেন মশু। রোববার দুপুরে জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ ব্যাপারে সাতক্ষীরার জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

দেবহাটা উপজেলার পারুলিয়া গ্রামের মৃত লুৎফর রহমানের ছেলে ও জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার মোশাফররফ হোসেন মশু তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, আমার বাবা মারা যাওয়ার পর থেকে দীর্ঘ ১২ বছর যাবৎ আমি আমার পৈত্রিক সম্পত্তি ভোগদখল করতে পারছিনা। এমন কি পৈত্রিক বাড়ীতেও অবস্থান করতে পারিনা। আমার সহোদর ভাই ভ‚মিদস্য আলতাফ ও শাফায়েত সম্পত্তির লোভে আমার পিতাকেও কয়েক বার হত্যার চেষ্টা চালিয়েছিল। যা এলাকাবাসী অবগত আছেন। প্রতিবেশীর সাথে সামান্য বিবাদ হলেই অস্ত্রবাজ আলতাফ প্রকাশ্যে পিস্তল উচিয়ে গুলি করতে উদ্যত হত। তিনি বলেন, আমার দুই ছেলে ঢাকাতে চাকুরীর সুযোগে আমার সম্পত্তি আলতাফ ও সাফায়েত অবৈধভাবে জবর দখল করে যাচ্ছে। ইতিপূর্বে আমার ৩ বিঘা পৈত্রিক সম্পত্তি কৌশলে তাদের নামে রেকর্ড করেছে। তাছাড়া আমাদের পৈত্রিক কয়েক বিঘাজমি আমাকে না জানিয়ে অন্যত্র বন্ধক দিয়েছে। জমিভাগ বন্টন নামা না হওয়া স্বত্তে¡ও অস্ত্রবাজ আলতাফ ও সাফায়েত জমি বিক্রি করার জন্য পায়তারা চালাচ্ছে। যদিও আমি সখিপুর সাব-রেজিস্ট্রি অফিস এবং জেলা রেজিস্টারের কাছে এই বিষয় নিয়ে লিখিতভাবে অভিযোগ করেছি। যে কারনে রেজিষ্ট্রি বন্ধ আছে। আমাদের পারিবারিক সম্পত্তি ভাগ ও বন্টননামা করার উদ্দেশ্যে স্থানীয় ভাবে পারিবারিক মুরব্বীদের নিয়ে কয়েক বার আলোচনা ও মিমাংসায় বসলে তারা তাদের কথা না মেনে তাদেরকে অপমানিত করেছে। তারা আমার চাচা বীর মুক্তিযোদ্ধা আতিয়ার রহমানের জমির ইজারা না দিয়ে অবৈধভাবে ভোগ দখল করে যাচ্ছে এবং অনৈতিকভাবে জমি বিক্রি করতে না পেরে তারা আমার চাচা ও আমার বিরুদ্ধে মিথ্যাচার করে হয়রানি করে যাচ্ছে। আমার চাচা আতিয়ার রহমান তার জীবনের নিরাপত্তা ও সমাধান চেয়ে গত ২৬ আগস্ট আইজিপির কাছে আবেদন করেন। বিষয়টি অনুসন্ধান ও মিমাংসার জন্য গত ১১ অক্টোবর দেবহাটা সার্কেল কর্তৃক বাদী ও বিবাদী পক্ষকে হাজির হওয়ার জন্য লিখিত ভাবে আদেশ দেওয়া হয়। কিন্তু আলোচিত অস্ত্রবাজ ও ভূমিদস্যু আলতাফ সরকারী আদেশ অমান্য করে হাজির হয়নি। বিএনপি শাসনামলে আলতাফ পকাশ্যে অস্ত্র ও মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত ছিল। বর্তমানে ধর্মীয় লেবাস পরে পারিবারিক সম্পত্তি অবৈধভাবে ভোগ দখল করে যাচ্ছে। তার কাছে এখনও অবৈধ অস্ত্র রয়েছে। তার বিরুদ্ধে দেবহাটা থানায় মামলাও রয়েছে। তিনি আরো বলেন, আমার ভাই ভূমিদস্যু আলতাফ গত ১৪ অক্টোবর সংবাদ সম্মেলনে আমার চাচা ও চাচাতো ভাইদের বিষয়ে যে সকল তথ্য উপস্থাপন করেন তা সম্পূর্ন মিথ্যা, বানোয়াট ও ভিত্তিহীন। আলতাফ অত্যান্ত হি¯্র্র প্রকৃতির সে যে কোন সময়ে আমার জান মালসহ বড়ধরনের ক্ষয়ক্ষতি করতে পারে বলে আশংকা করছি। এমতাবস্থায় আমি একজন বীরমুক্তিযোদ্ধা হিসেবে ওই ভ‚মিদস্যু অস্ত্রবাজ আলতাফ ও শাফায়েতের কবল থেকে পৈত্রিক সম্পত্তির সুষ্ঠ বন্টনসহ জীবনের নিরাপত্তা রক্ষার জন্য জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারসহ সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কাছে সহযোগিতা কামনা করছি। সংবাদ সম্মেলনে এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, বীরমুক্তিযোদ্ধা আতিয়ার রহমান, বীরমুক্তিযোদ্ধা হাসানুজ্জামান ও বীরমুক্তিযোদ্ধা জিল্লুর করিম প্রমুখ।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *