দেবহাটায় পূর্ব বিরোধের জেরে গৃহবধূকে পিটিয়ে জখম

দেবহাটা

সাতক্ষীরার দেবহাটাতে পূর্ব বিরোধের জের ধরে শামিমা ইয়াসমিন সাথী (২৫) নামের এক গৃহবধূকে পিটিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষরা। তিনি দেবহাটা উপজেলার দক্ষিন সখিপুর গ্রামের কবির হোসেনের স্ত্রী। বুধবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে পুর্ব শত্রুতার জের ধরে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে গৃহবধূ শামিমা ইয়াসমিন সাথীর বাড়ীতে ঢুকে তাকে বেধড়ক পিটিয়ে জখম করে প্রতিপক্ষরা। বর্তমানে তিনি সখিপুরস্থ দেবহাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

আহতের স্বামী কবির হোসেন জানান, দীর্ঘদিন ধরে প্রতিবেশী মৃত বাবুর আলী সরদারের ছেলে আকবর আলীর পরিবারের সাথে তাদের বিরোধ চলে আসছিলো। সম্প্রতি তাদের আরেক প্রতিবেশী নওশের আলী মারা গেলে মঙ্গলবার তাদের বাড়ীতে মৃত্যু পরবর্তী অনুষ্ঠান ছিলো। ৩০/৪০ জন আত্মীয় স্বজনের খাওয়ার ব্যবস্থা করা হয় কবির হোসেনের বাড়ীতে।

কিন্তু অনুষ্ঠান শেষে বুধবার সকালে ডেকোরেটরের সামগ্রী ফেরত আনতে একটি ভ্যান ভুল করে কবির হোসেনের বাড়ীর পরিবর্তে পূর্ব বিরোধ থাকা প্রতিবেশী আকবর আলীর বাড়ীতে ঢুকে পড়ে। এসময় আকবর আলী (৪০) তার স্ত্রী সালমা খাতুন (৩২), ছেলে আবু সাঈদ (১৮) ও আকবরের ভাই আজগর আলী ক্ষিপ্ত হয়ে কবির হোসেনের বাড়ীতে ঢুকে পড়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে।

সেসময়ে কবির হোসেন বাড়ীতে ছিলেননা। গালিগালাজের একপর্যায়ে তারা কবির হোসেনের স্ত্রী শামিমা ইয়াসমিন সাথীকে লাঠিশোঠা দিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে জখম এবং স্বর্নালঙ্কার ছিনিয়ে নেয়। পরে স্থানীয় প্রতিবেশীরা ঘটনাস্থলে পৌছে গুরুতর আহত অবস্থায় গৃহবধূকে শামিমা ইয়াসমিন সাথীকে উদ্ধার করে দেবহাটা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। এরিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আহতের পরিবারের পক্ষ থেকে বাদী হয়ে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিলো বলে জানা গেছে।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *