গ্রাম পুলিশদের পুরস্কারের ব্যবস্থা করলেন আশাশুনি থানার ওসি (ভিডিও)

আশাশুনি ফিচার

গ্রাম পুলিশদের কাজের প্রতি যত্নবান ও কর্তব্যপরায়ণ হওয়ার জন্য ব্যতিক্রম উদ্যোগ গ্রহণ করেছে সাতক্ষীরার আশাশুনি থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবদুল সালাম। আশাশুনি উপজেলায় ১১ টি ইউনিয়নে মোট ১০২ জন গ্রাম্য পুলিশ তাদের কর্তব্য পালন করে যাচ্ছেন। আবদুল সালাম আশাশুনি থানায় যোগদানের পর থেকে প্রতিমাসে একজন চৌকস গ্রাম্য পুলিশ নির্বাচন করে তাদের কাজের মুল্যয়ন স্বরূপ পুরস্কৃত করেন তিনি। জানুয়ারিতে সেরা চৌকস গ্রাম্য পুলিশ নির্বাচিত হয়েছেন আনুলিয়া ইউনিয়নের গ্রাম্য পুলিশ আব্দুস ছাত্তার। গ্রাম্য পুলিশদের মাসিক মাস্টার রোল প্যড়ডে সেরা চৌকস গ্রাম পুলিশের নাম ঘোষণা করে তাকে পুরস্কৃত করেন আশাশুনি থানার অফিসার ইনচার্জ । থানায় যোগদান করার পর থেকে মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, চাঁদাবাজ, ইভটিজার মুক্ত করে মানুষের মাঝে শান্তি ফিরিয়ে আনার লক্ষ্য তিনি কাজ করে যাচ্ছেন তিনি। সফলতার সাথে আশাশুনি থানায় তিনি ৮ মাস অতিবাহিত করেছেন বলে জানান তিনি। থানায় যোগদানের পর থেকেই মানুষের অতন্ত্র প্রহরী হিসেবে কাজ করে চলছেন আবদুল সালাম জানান স্থানীয়রা।

গ্রাম পুলিশদের পুরস্কারের ব্যবস্থা করলেন আশাশুনি থানার ওসি (ভিডিও)

গ্রাম পুলিশদের পুরস্কারের ব্যবস্থা করলেন আশাশুনি থানার ওসি (ভিডিও)

Posted by DainikSatkhira.com on Wednesday, 12 February 2020

সম্প্রতি নানা কারণে বেশ আলোচিত ও সব শ্রেণী পেশার মানুষের কাছে প্রশংসিত হয়ে উঠেছেন তিনি। বিশেষ করে থানায় জিডি ও মামলা করতে কোন টাকা লাগেনা। নানা অসুবিধায় পড়া মানুষগুলোর ভরসা ওসি আবদুল সালাম। বেশ সুনাম-সুখ্যাতিও কুড়িয়েছেন তিনি। আশাশুনির সর্বত্র বাসা-বাড়ী ও হাট-বাজারে চুরি-ডাকাতি এবং কিশোর-যুবকদের বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড বন্ধ করার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন অফিসার ইনচার্জ আবদুল মোঃ সালাম এছাড়া একাধিক ভুমিদূস্যতা, দখল-বেদখলসহ আইনশৃঙ্খলা পরিপন্থী কার্যক্রম রুখতে পারদর্শিতা দেখিয়ে যাচ্ছেন। এরপরও তিনি গ্রাম্য পুলিশদের কাজের মুল্যয়নের স্বীকৃতি স্বরূপ বিশেষ এক ব্যবস্থা গ্রহণ করায় বিভিন্ন মহলের প্রশংসা কুড়িয়েছেন তিনি।

গ্রাম্য পুলিশ আব্দুস ছাত্তারের জানুয়ারি মাসে সেরা চৌকস গ্রাম্য পুলিশ নির্বাচিত হওয়ায় অভিব্যক্ত করে বলেন, এর আগে কোন অফিসার ইনচার্জ তাদের কাজের মুল্যয়ন স্বরূপ পুরস্কৃত করেননি। তিনি জীবনে প্রথম কাজের যথার্থ মূল্যায়ন পেয়ে অনেক আনন্দিত হয়েছেন। আগামী মাসেও যেন তিনি আবারও পুরস্কার গ্রহণ করতে পারেন সেই লক্ষ্যে তিনি কাজ করে যাবেন বলে জানান।

গ্রাম্য পুলিশদের পুরস্কৃত করার বিষয়ে জানতে চাইলে আশাশুনি থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আবদুল সালাম জানান, আমি আসার পর থেকে চেষ্টা করেছি গ্রাম্য পুলিশদের কাজের আগ্রহ বাড়ানোর জন্য প্রতিমাসে চৌকস একজন গ্রাম্য পুলিশকে পুরস্কৃত করে কাজের প্রতি আগ্রহ বাড়ানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আমি আশা করি এজন্য অন্য যারা গ্রাম্য পুলিশ আছে তারা কাজের প্রতি আগ্রহ হবে। এবং আরও বেশি করে তথ্য দিবেন ও প্রতিষ্ঠিত হবেন।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *