শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় চির বিদায় নিলেন খান টিপু সুলতান

0
56

বিশেষ  প্রতিনিধি:
সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় চিরবিদায় নিলেন যশোর-৫ (মণিরামপুর) আসনের তিনবার নির্বাচিত সাবেক সংসদ সদস্য, বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাড. খান টিপু সুলতান।

রোববার বাদ আছর যশোর শহরের ঈদগাহ ময়দানে মরহুমের নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়। ঈদগাহ ময়দানে সর্বস্তরের মানুষেরা প্রিয় নেতার জানাজা নামাজে অংশ গ্রহণ করেন। জানাজার নামাজের প্রারম্ভে তাকে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়।

জানাজার নামাজে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য পিযুষ কান্তি ভট্টাচার্য, যশোর-৫ আসনের সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য, যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. আনোয়ার হোসেন, জেলা প্রশাসক আশরাফ উদ্দিন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সহ-সভাপতি কামরুজ্জামান চুন্নু, খয়রাত হোসেন, সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার, জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার রাজেক আহমেদ, সাবেক কমান্ডার মুযহারুল ইসলাম মন্টু, সাতক্ষীরা জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও কালের চিত্র পত্রিকার সম্পাদক অধ্যক্ষ আবু আহম্মেদ, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি শরীফ আবদুর রাকিব, জাসদ (ইনু) কেন্দ্রীয় কমিটির কার্যকরী সভাপতি রবিউল আলম, জাতীয় পাটি নেতা মাহবুব আলম বাচ্চু, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি অ্যাড. মোহাম্মদ ইসহাক, যশোর প্রেসক্লাবের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন, জেলা যুবলীগের সভাপতি মোস্তফা ফরিদ আহমেদ চৌধুরী, চৌগাছা উপজেলা চেয়ারম্যান এসএম হাবিববুর রহমান, ভাইস চেয়ারম্যান দেবাশীষ মিশ্র জয়, বাঘারপাড়ার আওয়ামী লীগ নেতা নাজমুল ইসলাম কাজল, আবদুর রউফ, এম এম কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ এস এম ইবাদুল হক, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শফিকুল ইসলাম জুয়েল, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বিপুল, বর্তমান সভাপতি রওশন ইকবাল শাহী, সাধারণ সম্পাদক সালসাবিল আহমেদ জিসানসহ বিভিন্ন সংগঠন ও শ্রেণী পেশার মানুষ।

জানাজা শেষে শহরের গাড়িখানা রোডে জেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ের সামনে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য মরদেহ রাখা হয়। সেখানে দলীয় নেতাকর্মী, সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের পক্ষ থেকে শেষ শ্রদ্ধা জানানো হয়। এরপর মণিরামপুরের উদ্দেশ্যে মরদেহ নেওয়া হয়। সেখানে মাগরিব বাদ জানাজা শেষে খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার ধামালিয়া গ্রামে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয় টিপু সুলতানকে।

শনিবার (১৯ আগস্ট) রাত সাড়ে ৯ টায় তিনি ঢাকা সেন্ট্রাল হাসপাতালের লাইফ সাপোর্টে থাকা অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন খান টিপু সুলতান।