লেবাননের সঙ্গে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে সৌদি : হিজবুল্লাহ

0
43
লেবাননের শিয়া মিলিশিয়াদের সংগঠন হিজবুল্লাহর প্রধান হাসান নাসরুল্লাহ বলেছেন, তাঁর দেশের সঙ্গে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে সৌদি আরব।
সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে লেবাননের প্রধানমন্ত্রী সাদ আল-হারিরির পদত্যাগের ঘোষণার কয়েক দিন পর শুক্রবার এই মন্তব্য করেন হিজবুল্লাহপ্রধান।
নাসরুল্লাহর অভিযোগ, সাদ হারিরিকে জোর করে আটকে রেখেছে সৌদি আরব। মধ্যপ্রাচ্যের অন্যতম প্রভাবশালী দেশটি লেবাননের বিরুদ্ধে ইসরায়েলকে উসকে দিচ্ছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।
লেবাননে শক্তিশালী সংগঠন হিজবুল্লাহ ইরানের ঘনিষ্ঠ মিত্র। হারিরির পদত্যাগ নিয়ে সংগঠনটি সৌদি আরবের সঙ্গে পাল্টাপাল্টি দোষারোপে লিপ্ত রয়েছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে লেবানন ও আশপাশের অঞ্চলে উত্তেজনা বেড়েছে।
গত শনিবার রিয়াদ থেকে টেলিভিশনে দেওয়া এক বক্তব্যে হারিরি বলেন, অদৃশ্য কোনো শক্তির কাছ থেকে মৃত্যুর হুমকি পাওয়ায় তিনি পদত্যাগের ঘোষণা দিচ্ছেন। ওই সময় তিনি হিজবুল্লাহ ও ইরানের সমালোচনা করেন।
হারিরির এই পদত্যাগ গ্রহণ করেননি লেবাননের প্রেসিডেন্ট মিশেল আউন। তিনিসহ দেশটির জ্যেষ্ঠ রাজনীতিকরা হারিরিকে দেশে ফেরত পাঠাতে সৌদির কাছে দাবি জানিয়েছেন।
লেবাননের শীর্ষ রাজনীতিকসহ বিভিন্ন মহলের ধারণা, হারিরিকে গৃহবন্দি করে রেখেছে সৌদি। দেশটিতে গিয়ে পদত্যাগের ঘোষণার পর থেকে এখন পর্যন্ত প্রকাশ্য কোনো বক্তব্য দেননি লেবাননের প্রধানমন্ত্রী।
এমন বাস্তবতায় শুক্রবার টেলিভিশনে দেওয়া বক্তব্যে নাসরুল্লাহ বলেন, লেবাননের নাগরিকদের মধ্যে যুদ্ধ বাঁধিয়ে দিতে চায় সৌদি আরব।
‘সংক্ষেপে বলতে গেলে, এটা স্পষ্ট যে সৌদি আরব ও সৌদির কর্মকর্তারা লেবানন ও লেবাননের হিজবুল্লাহর সঙ্গে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে। কিন্তু আমাকে এটা বলতে হবে যে, এটা লেবাননের সঙ্গে যুদ্ধ’, বলেন হাসান নাসরুল্লাহ।