রবির সম্পত্তি ক্রোকে ভোক্তা অধিদফতরের অভিযান

0
61

অনলাইন ডেস্কঃ

চূড়ান্ত নোটিশ দেয়ার পরও জরিমানা পরিশোধ না করায় বেসরকারি মোবাইল ফোন অপারেটর রবি’র জরিমানার সমপরিমাণ সম্পত্তি ক্রোক করছে জাতীয় ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতর।

এ নিয়ে মঙ্গলবার দুপুরে কোম্পানির গুলশান কার্যালয়ে অভিযান চালানো হয়েছে। অভিযানের নেতৃত্ব দিচ্ছেন অধিদফতরের উপ-পরিচালক শাহীন আরা মমতাজ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে উপ-পরিচালক শাহীন আরা মমতাজ জাগো নিউজকে বলেন, জরিমানার অর্থ পরিশোধ না করে রবি আইন অমান্য করেছে। যে অভিযোগের ভিত্তিতে রবিকে জরিমানা করা হয়েছে তা পরিশোধ করতে তারা বাধ্য। এর আগে এ নিয়ে তাদের নোটিশও দেয়া হয়েছে।

‘কিন্তু রবি জরিমানার অর্থ এখনও পরিশোধ করেনি। তাই আইন অনুসারে তাদের সম্পত্তি ক্রোকের জন্য অভিযান চালাচ্ছে।’

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, তিন গ্রাহকের পৃথক অভিযোগের ভিত্তিতে শুনানি শেষে রবিকে মোট ৪ লাখ ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। ওই সময় জরিমানার অর্থ পরিশোধের জন্য পাঁচ কার্যদিবস সময় চায় রবি।

সে হিসেবে গত ২৪ এপ্রিল (সোমবার) ছিল তাদের শেষ দিন। ওই দিনও জরিমানার অর্থ পরিশোধ করেনি কোম্পানিটি।

অধিদফতরের উপ-পরিচালক শাহীন আরা মমতাজ আরও বলেন, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ এর ৭০ (৫) ধারা অনুযায়ী গত ৩০ এপ্রিল রবিকে চূড়ান্ত নোটিশ দেয়া হয়। ওই নোটিশে ১৫ কার্যদিবস সময় দেয়া হলেও জরিমানার অর্থ পরিশোধ না করেনি তারা। তাই ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন অনুযায়ী রবির সমপরিমাণ অর্থের সম্পদ ক্রোক করা হবে।

আইনে প্রতিষ্ঠানটি সিলগালা করে দেয়ারও বিধান রয়েছে বলে জানান তিনি।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, সোহাগ নামে এক রবি গ্রাহক ৯৮ টাকা রিচার্জে ২৮ দিনের মেয়াদী দেড় জিবি ইন্টারনেট প্যাকেজ কেনেন। কিন্তু রিচার্জের পর তিনি পান মাত্র এক জিবি। এনিয়ে অভিযোগ করলে শুনানি শেষে রবিকে আড়াই লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

আর মো. সাইফুল নামে এক গ্রাহকের অভিযোগ, ভ্যাটসহ ২৮ টাকায় ৫০ এমবি ইন্টারনেট ডাটার অফার দিয়ে বলা হয়, একটি লিংকে গিয়ে সারাদিন বাংলা নাটক দেখা যাবে। কিন্তু তিনি ওই লিংকে গিয়ে কোনো নাটক দেখতে পাননি।

এ বিষয়ে অভিযোগ করা হলে শুনানি শেষে রবিকে দেড় লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

এছাড়া ২ টাকার বিনিময়ে ভ্যালু অ্যাডেড সার্ভিসে (ভ্যাস) হেলথ টিপস অফার অ্যাক্টিভ করেন আল-আমিন নামে আরেক রবি গ্রাহক। যিনি সার্ভিসটি বন্ধ করতে নির্ধারিত শর্টকোট পাঠালেও তা বন্ধ হয়নি। এতে অনেক সময় তার মোবাইল ফোনের ব্যালেন্স থেকে টাকা কেটে নেয়া হয়।

আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদফতরে অভিযোগ করেন ওই গ্রাহক। এরপর এ বিষয়ে শুনানি করে রবিকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

LEAVE A REPLY