মাংসের উৎপাদন বাড়াতে ব্রাজিল থেকে আধুনিক প্রযুক্তি আসছে

0
79

অনলাইন ডেস্ক :

‘নিরাপদ প্রাণিজ আমিষের প্রতিশ্রুতি সুস্থ সবল মেধাবী জাতি’ এই স্লোগানে দেশের প্রথমবারের মতো শুরু হওয়া প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ ২০১৭ এর সমাপ্তি ঘটেছে। সোমবার সমাপনী অনুষ্ঠানে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী মোহাম্মদ ছায়েদুল হক বলেছেন, এই সপ্তাহ ও মেলা পালনের মধ্যে দিয়ে কৃষক ও নতুন উদ্যোক্তাদের মধ্যে প্রাণের সঞ্চার হয়েছে। মাংসের উৎপাদন বৃদ্ধির জন্য ব্রাজিল থেকে মডার্ন টেকনোলজি আসছে। এ টেকনোলজি ব্যবহার করে খুব শিগগিরই মাংসে দেশ স্বয়ংসম্পন্ন হবে।

বিকেলে রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশনে অনুষ্ঠিত এ সভায় সভাপতিত্ব করেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মাকসুদুল হাসান খান। অনুষ্ঠান শেষে রচনা প্রতিযোগিতা ও মেলায় অংশ নেয়া প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থান অধিকারীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী বলেন, বিগত দুই দশকে দেশে দুধ, ডিম ও মাংসের উৎপাদন বহুগুণ বৃদ্ধি পেয়েছে। চাহিদার তুলনায় ডিম উৎপাদনে আমরা প্রায় কাছাকাছি রয়েছি। তবে আমরা চাহিদার তুলনায় মাংস উৎপাদনে পিছিয়ে আছি।

তিনি বলেন, মাংসের ঘাটতি পূরণ করার জন্য আমরা ব্রাজিল থেকে মডার্ন টেকনোলজি আনছি। এ টেকনোলজি ব্যবহার করে দেড় থেকে দু’বছরের মধ্যে একটি বাছুর মাংসের উপযোগী হবে। আমাদের দেশে সাধারণত পাঁচ থেকে ছয় বছর লাগে একটি গরু মাংসের উপযুক্ত হতে। আগামী মার্চ মাস থেকে এ কর্মসুচি শুরু হবে মাঠ পর্যায়ে।

অনুষ্ঠানে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন প্রাণিসম্পদ অধিদফতরের মহাপরিচালক ডা. মো: আইনুল হক। অন্যান্যের মধ্যে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির সভাপতি মীর শওকত আলী বাদশা, সিনিয়র সচিব ড. শামসুল আলম ও বাংলাদেশ প্রাণিসম্পদ গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. তালুকদার নুরুন্নাহার বক্তব্য রাখেন।

এস এম পলাশ