ত্বকের জন্য বাদাম খুবই উপকারী

0
347

লাইফস্টাইল ডেস্ক: সব ধরনের ত্বকের জন্য বাদাম খুবই উপকারী। বাদাম ত্বকের জেল্লা বাড়াতে সাহায্য করে। শুধু প্রয়োজন ত্বক অনুযায়ী ব্যবহার করা। কীভাবে আমরা বাদাম স্কিনে ব্যবহার করব জানা থাকলে খুব উপকার পাওয়া যাবে। কীভাবে বাদাম ব্যবহার করবেন-

অ্যাকনে মুক্ত ত্বক : বাদাম পাঁচ-ছয়টি, কিছু মুগডাল (সবুজ) নিমপাতার রসে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রাখুন। এরপর ভালো করে পেস্ট তৈরি করে নিন। এ পেস্ট মুখে ২০-২৫ মিনিট রাখুন। এতে ত্বকে ময়েশ্চারাইজার বজায় থাকবে সঙ্গে সঙ্গে ত্বক অ্যাকনে থেকে রক্ষা পাবে।

সানবার্ন ত্বকের খুব ক্ষতি করে। তাই সানবার্ন থেকে রক্ষা পেতে বাদামের ভূমিকা অপরিসীম। কয়েকটি বাদাম গোলাপজলে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রাখুন। এরপর ভালো করে পেস্ট তৈরি করে এর সঙ্গে ডিমের সাদা অংশ ও কয়েক ফোঁটা লেবুর রস ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে ২০-২৫ মিনিট মুখে রেখে ধুয়ে ফেলুন। এতে করে সানবার্ন রিম্যুভ হয়ে ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি পাবে।

রিংকেলস থেকে মুক্তি : রিংকেলস মুখের সৌন্দর্য নষ্ট করে ফেলে। তাই রিংকেলস কমাতে বাদামের গুরুত্ব অনস্বীকার্য। পাঁচ-ছয়টি বাদাম গরম দুধে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রাখুন। এরপর পেস্ট তৈরি করে ডিমের কুসুম ভালো করে মিশিয়ে নিয়ে মুখে লাগাতে হবে। শুকিয়ে এলে ভালো করে ধুয়ে ফেলুন। এ প্যাকটি সময় ও ধৈর্য নিয়ে ব্যবহার করলে ত্বকে টান টানভাব বজায় থাকবে। সেই সঙ্গে ত্বক ধীরে ধীরে প্রাণবন্ত হয়ে উঠবে।

আইক্রিম : আইক্রিম হিসেবে বাদাম তেল খুবই উপকারী। এ তেল নিয়ে চোখের চারপাশে হালকাভাবে নিয়মিত লাগালে ডার্কসার্কেল চলে যাবে। সেই সঙ্গে রিংকেলসও কমে আসবে। এ ছাড়া ঘরে বসেই আপনি তৈরি করে নিতে পারেন। কয়েকটি বাদাম পেস্ট করে এর সঙ্গে মধু মিশিয়ে নিয়মিত চোখে ব্যবহার করলে ডার্ক সার্কেল কমে যাবে।

বডি স্ক্রাবার : বডি স্ক্রাবার হিসেবে বাদাম ব্যবহার করে দেখতে পারেন। কয়েকটি বাদাম পেস্ট করে নিয়ে এর সঙ্গে সমপরিমাণে বেকিং সোডা মিশিয়ে নিন। এরপর এর সঙ্গে গরম দুধ সহযোগে প্যাক তৈরি করুন।

স্ট্রেস মাকর্স : স্ট্রেস মাকর্সের ক্ষেত্রে বাদাম খুবই উপকারী। তাই বাড়িতেই প্যাক তৈরি করে নিয়মিত ব্যবহার করলে ধীরে ধীরে দাগ কমে আসবে।