উপকুলীয় এলাকায় অবধৈভাবে বালি উত্তোলন : হুমকির মুখে বাঁধ

0
119

আনিসুর রহমান, শ্যামনগর :
সুন্দরবন উপকুলীয় নদী ভাঙ্গন এলাকা থেকে অবৈধ ভাবে ড্রেজার মেশিন দিয়ে পাইপের মাধ্যমে অবাদে বালি উত্তোলন করায় পাউ’বোর বেড়িবাধ হুমকির মুখে। এ এলাকার জনগন বেড়িবাধ ভাঙ্গন আতঙ্কে। উপজেলার সুন্দরবন উপকুলীয় ভাঙ্গন কবলিত বেড়ীবাঁধ এলাকার নদী থেকে ড্রেজার মেশিনের মাধ্যমে পাইপ লাগিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ কতিপয় ব্যক্তি বালি উত্তোলন করে লক্ষ লক্ষ টাকার ব্যবসা করে আসছে। অবৈধ ভাবে অবাদে বালি উত্তোলনের ফলে ঐ সমস্ত এলাকায় পাউ’বোর বেড়ীবাধ হুমকির মুখে।
সরজমিনে দেখা যায় মুন্সীগঞ্জ ইউনিয়নের হরিনগর বাজার সংলগ্নœ মালঞ্চ নদী ভাঙ্গন এলাকা থেকে ড্রেজার মেশিন লাগিয়ে পাইপের মাধ্যমে লক্ষ লক্ষ টাকার বালি উত্তোলন করে দীর্ঘদিন ব্যবসা করে আসছে এলাকার আব্দুল গফুর গাজীর পুত্র বাবলুর রহমান।
মুন্সীগঞ্জ থেকে হরিনগর বাজারে যাওয়ার পথে রাস্তার বাম পার্শ্বে বাবলুর বালির বিশাল স্তুপ লক্ষ্য করা যায়। নওয়াবেঁকী বাজারের পার্শ্বে একই ভাবে অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলন অব্যহত রয়েছে। কয়েক মাস পূর্বে শ্যামনগর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আহসান উল্লø্যাহ শরিফী অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলনের দায়ে কয়েক জনকে ভ্রামান আদালতে জরিমানা আদায় করলেও থেমে নেই অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলন।
এ ব্যাপারে অবৈধ বালি উত্তোলনকারী বাবলুর রহমান বলেন, জেলা প্রশাসক বরাবর বালি উত্তোলনের জন্য আবেদন করা হয়েছে। জেলা প্রশাসক মোখিক ভাবে বালি উত্তোলনের অনুমতি দিয়েছেন। বাবলুর রহমান আরো জানায় এ বালি রাস্তা নির্মানের কাজে ব্যবহার করা হবে। উপকুলীয় এলাকাবাসী এ ব্যাপারে আইন প্রয়োগকারীর সংস্থার দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন।