অভিযোগ দিলেও ব্যবস্থা নেয়নি পুলিশ

0
126

এস.এম পলাশ :
তুচ্ছ ঘটনায় এক মুক্তিযোদ্ধার ছেলেকে পিটিয়ে জখম করেছে কুশখালী ইউনিয়ন জামায়াত নেতা আবদুল্ল্যাসহ তার সহযোগিরা। সদর উপজেলার আড়ুয়াখালী গ্রামে এঘটনা ঘটে। ঘটনায় প্রতিকার চেয়ে পুলিশ সুপারের নিকট লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালেক গাজীর ছেলে মশিয়ার রহমান। তবে অভিযোগ দায়েরের ১৮ দিন অতিবাহিত হলেও কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি।
অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, আড়–য়াখালী বিলের পাশে কুয়ার পাশ দিয়ে হাটাকে কেন্দ্র করে মুক্তিযোদ্ধার আব্দুল খালেকের ভাইয়ের সাথে পার্শ্ববর্তী অজেদ আলীর ছেলে আব্দুল্যাহ’র বিরোধ চলে আসছিলো। ওই বিরোধকে কেন্দ্র করে ১৮ অক্টোবর সকালে মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালেকের ছেলে মশিয়ার রহমানকে কৌশলে ডাকে অজেদ আলীর ছেলে কুশখালী ইউনিয়ন জামায়াত নেতা আবদুল্ল্যাহ, জমশেদ আলীর ছেলে আব্দুর রকিব, জাকাত আলীসহ ৫/৭জন। এসময় তাকে ফাঁকা স্থানে নিয়ে বেধড়ক পিটিয়ে জখম করে। তার চিৎকার শুনে স্থানীয়রা ছুটে আসলে তারা পালিয়ে যায়।
হামলাকারীরা ২০১৩ সালের জামায়াত-শিবিরের নাশকতার সময় গাছকাটা, রাস্তাকাটাসহ বিভিন্ন নাশকতামূলক কর্মকান্ডে সরাসরি জড়িত ছিলো জানান ওই মুক্তিযোদ্ধা ছেলে মশিয়ার রহমান। তিনি আরো বলেন, অজ্ঞাত কারণে পুলিশ কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না। অবিলম্বে ঘটনার তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন তিনি।

একে/আই।